স্ত্রীর বিরুদ্ধে যৌতুকের মামলা স্বামীর

ছবি সংগীত
যশোরে যৌতুক দাবির অভিযোগে স্ত্রীর বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছেন শেখ মফিজুর রহমান নামের এক ব্যক্তি। গতকাল রোববার যশোরের জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এই অভিযোগ করা হয়। আদালতের সিনিয়ার জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সাইফুদ্দীন হোসাইন অভিযোগটি আমলে নিয়ে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের আদেশ দেন।

মামলার বাদী শেখ মফিজুর রহমান যশোর সদর উপজেলার সীতারামপুর গ্রামের শেখ মসলেম আলীর ছেলে। মামলার অভিযুক্ত ব্যক্তিরা হলেন মফিজুরের স্ত্রী সায়েলী পারভীন, শ্যালক আরিফুল ইসলাম ও তাঁদের প্রতিবেশী শেখ ইসলাম। সবার বাড়ি খুলনার ফুলতলা উপজেলার পায়গ্রামে। সায়েলী পারভীন ওই গ্রামের আজাহার খানের মেয়ে।

মামলার অভিযোগ, প্রথম স্ত্রীর মৃত্যুর পর গত বছরের ১৬ ফেব্রুয়ারি সায়েলীর সঙ্গে বিয়ে হয় আমিনুর রহমানের। বিয়ের সময় কনেপক্ষ আমিনুরের কাছে দুই লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে। তখন স্ত্রীকে নগদ ৫০ হাজার টাকা ও এক ভরি ওজনের সোনার হার, কানের দুলসহ মোট ১ লাখ ৪০ হাজার টাকার মালামাল দেওয়া হয়। বিয়ের কয়েক দিনের মাথায় তাঁর স্ত্রী অন্যদের প্ররোচনায় আমিনুরকে বাড়িসহ জমি লিখে দেওয়ার জন্য চাপ সৃষ্টি করেন।

একপর্যায়ে গত ১ ডিসেম্বর সোনার হার, কানের দুল ও নগদ টাকা নিয়ে বাড়ি থেকে চলে যান সায়েলী। পরে আমিনুর তাঁদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তাঁর শ্বশুরবাড়ি থেকে জানানো হয়, ওই বাড়িসহ জমি অথবা পাঁচ লাখ টাকা দিতে হবে। অন্যথায় সায়েলী আর সংসার করবেন না। বিষয়টি মীমাংসায় ব্যর্থ হয়ে তিনি আদালতে মামলা করেন।

জানতে চাইলে বাদীর আইনজীবী আরমান আলী বলেন, আদালত যৌতুক দাবির মামলাটি আমলে নিয়ে পিবিআইকে তদন্তের আদেশ দিয়েছেন।
সূত্র প্রথম আলো

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *